ধারাবাহিক হতে চান লিটন

ধারাবাহিকতা যেন লিটন দাসের জন্য সোনার হরিণ। সেটিই যেন প্রথমবারের মতো খুঁজে পেয়েছেন লিটন। লিটন দাসকে কীভাবে আউট করব? ওয়ানডে ও টি-টোয়েন্টি সিরিজ জুড়ে জিম্বাবুয়ের ক্রিকেটাররা নিশ্চয়ই নিজেদের মধ্যে এই নিয়ে আলোচনা করেছেন। এক সিরিজে ৫ ইনিংস ব্যাট করে লিটন করেছেন ৪৮৩ রান। সেই একমাত্র টেস্ট থেকে শুরু করে আজকের শেষ টি-টোয়েন্টি পর্যন্ত লিটন ছিলেন দেয়াল হয়ে। এই দেয়াল ভাঙার হাতিয়ার যে ছিল না জিম্বাবুয়ের কাছে।

সুযোগটাও কাজে লাগিয়েছেন লিটন। এত দিন তাঁর ক্যারিয়ারে যা ছিল না, সেটিই হাতিয়ে নিয়েছেন এই সিরিজে। ২০১৪ সাল থেকে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলছেন। লিটনের ব্যাটিংয়ে কখনই ধারাবাহিকতা ছিল না। ধারাবাহিকভাবে রান করা তাঁর কাছে সোনার হরিণের মতন। যা একবার পেলে হাতছাড়া করতে চাইবেন না এই তরুণ ব্যাটসম্যান। কিন্তু ধারাবাহিকতা নামক সোনার হরিণ যে ধরে রাখা খুবই কঠিন।

আজ মিরপুর শেরেবাংলা স্টেডিয়ামে ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে লিটন বলেছিলেন।‘আপনি যখন একটা জিনিস হাতে পাবেন, সেটা ফেলে দেওয়া অনেক সহজ, ধরে রাখা কঠিন।’ কঠিন কাজটাই এখন লিটনকে করতে হবে। জিম্বাবুয়ের অনভিজ্ঞ বোলিং আক্রমণ থামাতে পারেনি লিটনকে। কিন্তু সামনে আরও কঠিন চ্যালেঞ্জ। সেখানে ব্যর্থ হলেই যে সামর্থ্য নিয়ে প্রশ্ন উঠবে, ভালোই জানা লিটনের। তাই তো পরিশ্রমের মাত্রাটা আরও বাড়াতে হবে। কষ্ট করতে হবে। আজ লিটন বলছিলেন, ‘এখন আমার জন্য চ্যালেঞ্জ হলো যে আমি আসলে পারফরম্যান্সটা কতটা ধরে রাখতে পারছি সেটি। আমি চেষ্টা করব এই পারফরম্যান্স ধরে রাখতে। জানি না কতটুকু পারব। কিন্তু অনুশীলনে কঠোর পরিশ্রম করব।

Check Also

এবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জয়ের প্রত্যয় নেইমারের

সদ্য শেষ হওয়া মৌসুমে খুব কাছে গিয়েও ফিরতে হয়েছে স্বপ্নভঙ্গের বেদনা সঙ্গী করে। তবে ভেঙে …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *